আশুলিয়ায় শিশু অপহরনের ঘটনায় দম্পতি আটক

0
59

সময়ের বার্তা ।।

আশুলিয়ার সাজ্জাদুর রহমান সাকিব নামে ৪ বছরের এক শিশুকে অপহরনের ঘটনায় এক দম্পতিকে আটক করেছে এলাকাবাসী। এসময় অপহরন হওয়া শিুশুটিকেও উদ্ধার করা হয়েছে।

বুধবার দুপুরে আশুলিয়ার চাকলগ্রাম এলাকা থেকে তাদেরকে আটক করা হয়। পরে আটককৃতদেরকে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে।

খবর পেয়ে র‌্যাব-৪ এর নবীনগর ক্যাম্পের সদস্যরা ঘটনাস্থল পরিদর্শ করেছেন। এসময় র‌্যাবের পক্ষ থেকে অপহরনকারী আটকের বিষয়টি পুলিশকে অবহিত করা হয়েছে।

আটককৃতরা হলো- চাকলগ্রাম এলাকার আনোয়ার হোসেনের বাড়ি ভাড়াটিয়া রোমান (২৫) ও তার স্ত্রী প্রিয়া আক্তার (২২)। এদের মধ্যে প্রিয়ার বাড়ি গোপালগঞ্জ ও রোমানের বাড়ি যশোর বলে জানা গেছে।

উদ্ধার হওয়া শিশুর বাবা আনোয়ার হোসেন জানান, সকালে আমার ছেলে সাকিব বাসার সামনে খেলা করছিল। হঠাৎ করে তাকে খোজে পাওয়া যাচ্ছিলনা। অনেক খোজাখুজির পর এলাকাবাসীর সহায়তায় সাকিব উদ্ধার হওয়ার পর জানতে পারি আমার বাড়ির ভাড়াটিয়া প্রিয়া আক্তার ও তার স্বামী রোমান আমার ছেলে সাকিবকে জুস খাইয়ে কৌশলে অপহরন করে নিয়ে যায়। তারা বাড়ি ভাড়ার নেয়ার সময় নিজেদেরকে পুলিশ সদস্য বলে পরিচয় দিয়েছিলো।

উদ্ধারকারী আঞ্জুয়ারা বেগম জানান, সকাল সাড়ে ১০ দিকে প্রিয়া আক্তার নিজেকে পুলিশ পরিচয় দিয়ে সাকিবকে আমার কাছে রেখে আসেন। সে বলেছিলো আমার স্যার ফোন করেছে তাই ছেলেটিকে আপনার কাছে একটু রাখেন কিছুক্ষন পর এসে নিয়ে যাবো। কিন্তুু প্রায় দুই ঘন্টার পার হয়ে গেলেও ছেলেটিকে নিতে না আসায় বিষয়টি প্রতিবেশীদেরকে জানাই। পরে একটি ছেলে পাওয়া গেছে বলে বিষয়টি মাইকিং করা হলে জানতে পারি চাকলগ্রাম ছেলেটিকে পাওয়া যাচ্ছিলনা। এসময় ওই ছেলেকে তার বাড়িতে নিয়ে গিয়ে বাবা মায়ের কাছে পৌছে দিই।

জানতে চাইলে ঢাকা জেলা উত্তরের গোয়েন্দা পুলিশের ওসি এ.এফ.এম সায়েদ বলেন, এই নামে আমাদের কোন পুলিশ সদস্য নেই। একটি চক্র পুলিশের নাম ভাঙ্গিয়ে এ ধরনের অপকর্ম করে থাকে।

এব্যাপারে র‌্যাব-৪ এর নবীনগর ক্যাম্পের অধিনায়ক মেজর আব্দুল হাকিম বলেন, অপহরনের খবর শুনে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে বিষয়টির সত্যতা পেয়েছি। অপহরনকারীরা নিজেদেরকে পুলিশ পরিচয় দিয়ে বাসা ভাড়া নিয়েছিলো। তাই ঘটনাটি থানা পুলিশকে অবহিত করা হয়েছে। তারা অপহরনকারীদের আটক করে থানায় নিয়ে যাবে।