খোলা চোখে ডিজিটাল বাংলাদেশ এবং প্রস্তাবিত বাজেট

0
111

সময়ের বার্তা ডেস্ক।।

আপনি ডেস্কটপ বা ল্যাপটপে সাধারণভাবে কী কাজ করেন? লেখেন, ছবি আঁকেন, ছবি সম্পাদনা করেন, হিসাব-নিকাশের কাজ করেন, ইন্টারনেট ব্রাউজ করেন এবং এর মাধ্যমে বিচিত্র সব ওয়েব পোর্টালে চোখ রেখে ঘরে বসেই বিশ্ব ভ্রমণ করেন।

এখন ভাবুন তো, উপরের এই কাজগুলো কি এখন শুধুই আপনার ডেস্কটপ বা ল্যাপটপে করছেন? না, আপনি এখন কম্পিউটিংএর কাজগুলো সবচেয়ে বেশি করছেন আপনার স্মার্টফোনে। ল্যাপটপ বা ডেস্কটপের চেয়েও একটি উপযুক্ত সক্ষমতার স্মার্টফোন প্রচলিত কম্পিউটিংএর চেয়েও অনেক বেশি সুবিধা দিচ্ছে। বিশেষ করে স্মার্টফোনে নিত্যনতুন অ্যাপ্লিকেশন আপনার প্রতিদিনের জীবনের অনেক কিছুই খুব সহজ করে দিচ্ছে। কথা বলা থেকে শুরু করে রাস্তায় বের হওয়ার জন্য গাড়ি ভাড়া করা পর্যন্ত সব কিছুই হচ্ছে স্মার্টফোনে আঙুলের ছোঁয়ায়।

গবেষণার দরকার নেই, খোলা চোখে তাকালেই বোঝা যায় এখন কম্পিউটিং ডেস্কটপ বা ল্যাপটপ নয়, বরং অনেক বেশি স্মার্টফোন-নির্ভর। আগামী দিনে এই নির্ভরতা আরও বাড়বে। খুব ভারী কাজ ছাড়া সাধারণ কম্পিউটিংএর কাজের জন্য ডেস্কটপ কিংবা ল্যাপটপের ব্যবহার অদূরভবিষ্যতে বলতে গেলে থাকবে না, এটাও বেশ বোঝা যাচ্ছে। যে কারণে ল্যাপটপ কিংবা ডেস্কটপ তৈরির বিশ্বখ্যাত কোম্পানিগুলোও এখন স্মার্টফোনের বাজারে জায়গা করে নিতে প্রতিযোগিতায় নেমেছে।

বিশ্বের উন্নত, স্বল্পোন্নত অনেক দেশ, এমনকি আমাদের প্রতিবেশি ভারতের সরকারও সে দেশে জনগণকে স্মার্টফোনের ব্যবহার বিস্তৃত করতে কয়েক বছর আগেই নূন্যতম হারে আমদানি শুল্ক নির্ধারণসহ নানা রকম সুবিধা দিচ্ছে। কারণ সেসব দেশের নীতিনির্ধারকরা আজকের চলার পথটা ঠিক করেন ভবিষ্যতের গতিপথের প্রতি নিবিড় লক্ষ্য রেখে।

আমাদের নীতিনির্ধারকরাও কিন্তু দেশ এগিয়ে নিতে সুন্দর ভবিষ্যৎ রচনার স্বপ্ন দেখেন এবং দেখান। ২০০৮ সালের নির্বাচনের আগে আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন মহাজোটের নির্বাচনী ইশতেহারে ডিজিটাল বাংলাদেশের যে রূপকল্প দেখানো হয়েছিল তা সত্যিই দেশের তরুণ প্রজন্মকে দারুণভাবে নাড়া দিয়েছিল। ক্ষমতায় এসে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডিজিটাল বাংলাদেশ বাস্তবায়নে মনোযোগী হন এবং তিন বছরের মধ্যেই সীমিত সামর্থ্য কাজে লাগিয়ে ইউনিয়ন পরিষদ তথ্য সেবা কেন্দ্রের মাধ্যমে তৃণমূলে ডিজিটাল সেবা পৌঁছে দিয়ে বুঝিয়ে দেন ডিজিটাল বাংলাদেশ বাস্তবায়ন নিছক কোনো কল্পনা নয় এবং সদিচ্ছা থাকলে মহৎ লক্ষ্য অর্জনে খুব বেশি সময় লাগেও না।