চবিতে ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষ: আহত ৭

0
132

সময়ের বার্তা ।।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে আবারো ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের সংঘর্ষ হয়েছে। এতে সংগঠনটির ৭ কর্মী আহত হয়েছেন। আহতদের মধ্যে শাটল ট্রেনের বগিভিত্তিক সংগঠন একাকারের ৬ জন ও কনকর্ডের এক কর্মী রয়েছেন।
শনিবার দুপুর আড়াইটার দিকে চবি রেল স্টেশনে এ ঘটনা ঘটে। দুটি গ্রুপই সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিনের অনুসারী।
বিকেল সাড়ে পাঁচটায় এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ক্যাম্পাসে উত্তেজনা বিরাজ করছিল। ঘটনার পর ছাত্রলীগের দুইটি গ্রুপ মুখোমুখি অবস্থান করছে।  বিবাদমান দুইটি গ্রুপের মধ্যে কনকর্ডের কর্মীরা শাহ আমানত হলের সামনে ও একাকারের কর্মীরা শাহজালাল হলের সামনে অবস্থান করছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে পুলিশ কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোঁড়ে।
চবি পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ আবুল খায়ের বলেন, শাটল ট্রেনে কনকর্ডের কর্মীরা একাকারের কর্মীদের ওপর হামলা চালায়। এতে ধারালো অস্ত্রের আঘাতে ছয়জন আহত হয়েছে। ক্যাম্পাসে উত্তেজনা বিরাজ করছে। আমরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করছি।
চবি ছাত্রলীগের সাবেক উপ দপ্তর সম্পাদক একাকারের নেতা ইমাদ আহমেদ সাহিল বলেন, কনকর্ডের সঙ্গে আমাদের কিছু সমস্যা ছিল।  বিশ্ববিদ্যালয় ও পুলিশ প্রশাসনের হস্তক্ষেপে তা সমাধান করা হয়েছে। তারপরও বিনা উস্কানিতে কনকর্ডের কর্মীরা আমাদের কর্মীদের ওপর হামলা করেছে।

এ ঘটনায় কনকর্ডের একাধিক নেতার সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাদেরকে পাওয়া যায়নি।
আহত কর্মীরা হলেন- রাষ্ট্রবিজ্ঞান ২০১১-২০১২ শিক্ষাবর্ষের রাহুল মজুমদার, পদার্থবিদ্যা বিভাগের ২০১২-২০১৩ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী নিয়াজ, রসায়ন বিভাগের ২০১৩-২০১৪ শিক্ষাবর্ষের মিতুল, ভূগোল বিভাগের ২০১৩-২০১৪ শিক্ষাবর্ষের জিহাদ, আইইআরটি ২০১৩-২০১৪ শিক্ষাবর্ষের বিল্লাল হোসেন ও কম্পিউটার সায়েন্স বিভাগের ২০১৪-২০১৫ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী জাহিদ।

এছাড়া ছোটন নামের কনকর্ডের এক কর্মী আহত হয়েছেন।