নতুনধারার চেয়ারম্যান কলামিস্ট মোমিন মেহেদীকে হত্যার হুমকি: বিভিন্ন মহলের নিন্দা

0
156
ঢাকা অফিস ॥ নতুনধারা বাংলাদেশ-এনডিবির চেয়ারম্যান কলামিস্ট মোমিন মেহেদীকে হত্যার হুমকি দিয়েছে সাংবাদিক পরিচয় প্রদানকারী অজ্ঞাত কয়েকজন নারী। জানা যায়, ১৫ মার্চ বেলা ১২ টায় মোমিন মেহেদীর নিজস্ব কার্যালয়ে অজ্ঞাত কয়েকজন নারী এসে সাংবাদিক পরিচয় দিয়ে কথা বলতে চায়। এসময় তিনি পরিচয়পত্র দেখতে চাইলে সাংবাদিক পরিচয় প্রদানকারীরা পরিচয়পত্র না দেখিয়ে বরং তাঁর উপর হামলা চালায়।
ভবনের নিরাপত্তা কর্মী ও অন্যান্য অফিসের কর্মকর্তারা মোমিন মেহেদীকে উদ্ধার করে এবং হামলাকারীদেরকে আটকের চেষ্টা চালায়। হামলাকারী আটক হওয়ার ভয়ে দ্রুত স্থান ত্যাগ করার সময় মোমিন মেহেদীকে হত্যার হুমকি দিয়ে যায়।
এ ঘটনায় শাহবাগ থানায় জিডি(৯৩৬) করেছেন মোমিন মেহেদী। অন্যদিকে এই ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবী জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন সেভ দ্য রোডের চেয়ারম্যান ও সোনাগাজী উপজেলা চেয়ারম্যান জেড এম কামরুল আনাম, মহাসচিব শান্তা ফারজানা, নতুনধারা বাংলাদেশ-এনডিবির উপদেষ্টা এ্যাড. কাজী সাজাওয়ার হোসেন, প্রেসিডিয়াম মেম্বার জাতীয় মুক্তিযোদ্ধাধারার সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা কৃষকবন্ধু আবদুল মান্নান আজাদ, জাতীয় পেশাজীবীধারার সভাপতি এ্যাড. ফারুক আহমেদ, আহমেদুল কবীর খান কিরণ, ভাইস চেয়ারম্যান ডা. নূরজাহান নীরা. অনলাইন প্রেস ইউনিটির সভাপতি শেখ হাবিব খোকন, সহ-সভাপতি সফিকুল ইসলাম প্রমুখ।
উল্লেখ্য, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র অধিকার আন্দোলন জোটের সাবেক সাধারণ সম্পাদক, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সাবেক সভাপতি ও অনলাইন প্রেস ইউনিটির প্রতিষ্ঠাতা মোমিন মেহেদীর নেতৃত্বে ২০১২ সালের ৩১ ডিসেম্বর জাতীয় প্রেসক্লাব থেকে ‘রেডর‌্যালী’র মধ্য দিয়ে নতুনধারা বাংলাদেশ-এনডিবির আত্মপ্রকাশ ঘটে।
এরপর থেকে জঙ্গী-জামায়াত-যুদ্ধাপরাধী-দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে লেখার কারণে একের পর এক খুন-গুমের হুমকি দিতে থাকে ষড়যন্ত্রকারী-অজ্ঞাত সন্ত্রাসীরা। মোমিন মেহেদীর প্রকাশিত গ্রন্থ সংখ্যা ৫৭। তিনি নতুনধারা বাংলাদেশ-এনডিবির ৪১ জেলা ও ১০২ উপজেলা কমিটি সহ ১৬৫ টি কমিটি এবং সকল শর্ত পূরণ করে নির্বাচন কমিশনে গত ৩১ ডিসেম্বর নিবন্ধনের জন্য আবেদন করেন।