পটুয়াখালীতে ভাবী-ননদ কে কুপিয়ে জখম

0
14
SONY DSC

স্টাফ রিপোর্টার ॥ মাটি কাটাকে কেন্দ্র করে একই পরিবারের দুই জনকে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করেছে প্রতিপক্ষরা। আহতদের কে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গত ৯ নভেম্বর (শুক্রবার) দুপুর ১২টায় পটুয়াখালীর, পাটুখালী গ্রামে এ সহিংসতার ঘটনা ঘটে।

আহতের পরিবার সুত্রে জানা গেছে ঘটনার দিন দুপুরে ঐ গ্রামের বাসিন্দা রুস্তুম ফকির এর নিজ জমির মাটি কাটতে যায় তার বোন আমেনা বেগম (৪৫)। এ সময় স্থানীয় কবির তার দলবল নিয়ে মাটি কাটায় বাধা প্রদান করে। এ নিয়ে উভয়ের মধ্যে কথার কাটা কাটি হয়। এক পর্যায়ে ক্ষীপ্ত হয়ে কবির এর নেতৃত্ত্বে বেল্লাল , আরিফ, ইয়াছিন মৃধা , ফিরোজ শিকদার, জাফর ও জাহানূর সহ অজ্ঞাত আরো ৮/১০ জনে মিলে রামদা, চাপাতি ও ছোড়া দিয়ে আমেনা কে খুন করার উদ্দেশ্যে এলোপাথারী কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। তার ডাক চিৎকার শুনে ননদ সুফিয়া বেগম (৪২) ঘটনা স্থানে গেলে তাকেও কুপিয়ে তার ডান হাতের আঙ্গুল গুলো বিচ্ছিন্ন করে ফেলে।

পরে স্থানীয়রা ঘটনা স্থলে ছুটে যায় এবং আহতদের কে উদ্ধার করে পটুয়াখালী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। তাদের অবস্থার অবনতি দেখে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাদের কে তাৎক্ষনিক বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরন করে। আহতদের মধ্যে আমেনার অবস্থা আশংকাজনক । সে হাসপাতালের বেডে মৃত্যুর সাথে লড়াই করছে । এ ঘটনায় মামলা দায়েলের প্রস্তুতি চলছে বলে জানান আহতের পরিবার।