প্রেমিকাকে রাস্তায় ফেলে পেটালো প্রেমিক অনিক, রাতভর নানা নাটকীয়তার পরে মুক্তি

0
81

স্টাফ রিপোর্টার ॥ নগরীতে রাস্তায় ফেলে প্রেমিকার উপর হামলার ঘটনায় প্রেমিককে আটক করে পুলিশ। যদিও রাতভর নানান নাটকীয়তার পরে প্রেমিক অনিককে শুক্রবার বিকালে ছেড়ে দেয় কোতয়ালী থানা পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার (২১ জুন) সন্ধ্যারাতে বরিশাল নগরীর কালিবাড়ী রোডের সম্মুখ এলাকায়।

বরিশাল ‘ল’ কলেজের আখি নামে এক কলেজ ছাত্রীর সঙ্গে নগরীর হাতেম আলী চৌমাথা এলাকার বাসীন্দা আনিস চৌধুরীর ছেলে বখাটে অনিক রহমান চৌধুরীর সাথে দীর্ঘদিন যাবত প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিল।

আখির সাথে সম্পর্ক রেখে অন্য একটি মেয়ের সাথে আ্ড্ডা দেওয়ার সময় হাতেনাতে ধরে ফেলে আখি। এবিষয় অনিকের সাথে বাক বিতন্ড হয়। অনিক আখিকে প্রকাশ্যে রাস্তার ফেলে এলোপাতারি লাথি ও বেধড়ক পিটুনি দেন। একপর্যায়ে প্রচন্ড মারধরে কলেজছাত্রী সড়কের ওপরে পড়ে যান।

বিষয়টি প্রত্যক্ষদর্শী বরিশাল প্রেসক্লাবের ক্রীড়া সম্পাদক ও বরিশাল প্রতিদিনের বার্তা সম্পাদক নাসিমুল হকসহ বেশ কয়েকজন। কলেজছাত্রীকে উদ্ধার করতে গিয়ে নাসিম সহ স্থানীয়রাও বখাটে অনিকের হামলার শিকার হয়েছেন। এসময় স্থানীয়রা কোতয়ালী মডেল থানার পুলিশ খবর দিলে পুলিশ গিয়ে তাকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে যায়।

এদিকে অনিককে গ্রেপ্তারের খবর পেয়ে তার চাচা ডা. এমআর চৌধুরী থ্নাায় ছুটে অনিককে ছেড়ে নিতে এসে তদ্বির শুরু করেন। কলেজ ছাত্রী আখি রাতভর থানায় মামলা করার চেষ্টা করেও কোন লাভ হয়নি। রহস্যজনক ভাবে শুক্রবার বিকালে অভিযোগপত্র তুলে নেন আখি। উল্লেখ্য অনিক চৌধুরীর বিরুদ্ধে এর আগেও নারী কেলেকাংরী ঘটনারও অভিযোগ পাওয়া যায়। বাবা নগরীর প্রভাবশালী হওয়াতে একের পর এক অপক্রম চালিয়ে গেলেও প্রশাসন এর কোন পদক্ষেপ নিচ্ছেন না।

এবিষয় বরিশাল মেট্রোপলিটন কোতয়ালী মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি/তদন্ত) আসাদুজ্জামান ওই কলেজছাত্রী আখির বরাত দিয়ে জানিয়েছেন-অনিকের সাথে দীর্ঘ ৭ থেকে ৮ বছর আখির সাথে হৃদয়ঘটিত সম্পর্ক ছিল। সাম্প্রতিকালে অনিক সেই সম্পর্ক ভেঙে দিয়ে নতুন আরেকটি মেয়ের সাথে প্রেম শুরু করেন অনিক।

ওই মেয়ের সাথে কালিবাড়ী রোডের মুখে দেখতে পেয়ে রাগে তাদের কাছে ছুটে গিয়ে সম্পর্ক ছেড়ে দেওয়ার কারণ জিজ্ঞাসা করেন আখি। তখন অনিক ক্ষুব্ধ হয়ে আখিকে মারধর করেন। ওই সময় সাংবাদিক ও স্থানীয়রা আখিকে বাঁচাতে গেলে তাদের ওপরেও হামলা করেন অনিক। এই ঘটনায় রাতে কলেজছাত্রী অর্থাৎ আখি অভিযোগ দায়ের করে কিন্তু শুক্রবার বিকালে আখি নিজেই বিকালে অভিযোগ তুলে নেন।