ফোঁড়া অপারেশনে ভোলায় সুস্থ্য রোগীর মৃত্যু

0
30

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট ||

সদর উপজেলায় সদ্য চালু হওয়া শাহবাজপুর জেনারেল হাসপাতাল নামে একটি প্রাইভেট ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসায় এক রোগীর মৃত্যুর অভিযোগ পাওয়া গেছে। ফোঁড়া অপারেশন করতে গিয়ে রোগী মারা যান বলে অভিযোগ করেছেন নিহতের স্বজনরা।

নিহতের ছেলে মো. ইমরান জানান, তার বাবা মো. শাহ জামাল (৫০) গত কয়েক দিন ধরে ঘাড়ে ফোঁড়ার ব্যাথায় ভুগছিলেন। বৃহস্পতিবার বিকালে শহরের শাহবাজপুর জেনারেল হাসাপাতলে আনলে সেখানকার খণ্ডকালীন চিকিৎসক সামী আহমেদ অপারেশন করাতে বলেন।পরে বিকাল ৫টায় অপারেশন করাতে তাদেরকে ওষুধ কিনে আনতে বলেন তিনি। ওষুধ আনলে সন্ধ্যা ৭টায় চিকিৎসক সামী আহমেদ রোগীকে অজ্ঞান করে অপারশন করেন। অপারেশন শেষ হলে রোগীর নাক ও মুখ থেকে লালা বের হতে দেখে চিকিৎসক অপারেশন থিয়েটার থেকে বেড়িয়ে আসেন। এর কিছুক্ষণ পর হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানায় রোগী মারা গেছেন।

এ ঘটনায় ভোলা শহরের মাসুমা খানম স্কুল রোডে ও হাসপাতালে রোগীর স্বজন ও স্থানীয়রা বিক্ষোভ করেন। খবর পেয়ে ভোলা পৌরসভার মেয়র মোহাম্মদ মনিরুজ্জামান ও পৌরসভার কর্মকর্তা-কর্মচারীরা ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন।

এ ব্যাপারে হাসপাতাল ম্যানেজার মো. আযাদ বলেন, চিকিৎসক বলেছেন, রোগীকে অপারেশন করা হয়নি, ড্রেসিং করা হয়েছে। কি কারণে রোগী মারা গেছেন তা আমরা জানি না। চিকিৎসকই ভালো বলতে পারবেন।
এ বিষয়ে জানতে চিকিৎসক সামী আহমেদকে তার মোবাইল ফোনে একাধিকবার ফোন করেও পাওয়া যায়নি।

ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ছগির মিঞা জানান, আমরা ঘটনাটি শুনে তাৎক্ষণিক পুলিশ পাঠিয়েছি। অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়ন করা হয়েছে। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে কোনো অভিযোগ দেয়া হয়নি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

নিহত শাহ জামাল উত্তর দিঘলদী গ্রামের মৃত মোতালেবের ছেলে ও ভোলা পৌরসভার কনজুমার শাখার পরিদর্শক পদে চাকরি করতেন।