বরিশাল সিটি কলেজের শিক্ষক সাহান আরা বেগমের বিরুদ্ধে সরকারি অর্থ আত্মসাতের অভিযোগ

0
113

স্টাফ রিপোর্টার ।। বরিশাল সিটি কলেজের প্রভাষক সাহান আরা বেগম প্যাটার্ন বর্হিভুত অতিরিক্ত শিক্ষক হয়েও সরকারী ১৯,৩৪ ৯৩৫/- টাকা উত্তোলন করে আত্মসাত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে ।

কলেজ সুত্রে জানা যায় ২০০৮ সনের ২৯ জুলাই শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের অডিট রিপোর্ট অনুযায়ী সাহান আরা বেগম প্যাটার্ন বর্হিভুত অতিরিক্ত শিক্ষক হওয়ায় সরকারী বেতন ভাতা প্রাপ্য নহেন এবং উত্তোলিত ৭,৫২,৭৮২/- টাকা সরকারী কোষাগারে ফেরত যোগ্য।

আরো উল্লেখ করেন যে, ২০০৮ সনের ৩১ মে তারিখের পরে সাহানারা বেগম বেতন ভাতা গ্রহন করলে তাও ফেরতযোগ্য হবে। সে অনুযায়ী ২০০৮ সনের ১ জুন তারিখ থেকে ২০১৫ সনের ১৭ মে তারিখ পর্যন্ত ১১, ৮২,১৫৩/- টাকা রুপালী ব্যাংক লিঃ, সদর রোড, বরিশাল এসবি ২২১০৩৬ নং হিসাব থেকে উত্তোলন করেন। সর্বমোট +৭ ৫২ ৭৮২/-+১১,৮২,১৫৩/-) – ১৯,৩৪,৯৩৫/- সরকারী কোষাগারে ফেরত যোগ্য।

সাহান আরা বেগম উক্ত ১৯,৩৪,৯৩৫/- টাকা অদ্যবিধি সরকারী কোষাগারে জমা দেন নেই। শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের অডিট রিপোর্ট মর্মে সাহান আরা বেগম প্যাটার্ন বর্হবভুত অতিরিক্ত শিক্ষক হওয়ায় তিনি বরিশাল সিটি কলেজের এমপিও ভুক্ত শিক্ষক হওয়ার যোগ্যতা রাখে না।

এ ছাড়াও তিনি অবৈধ ভাবে দায়িত্বে এসে ন্যাশনাল ব্যাংক লিঃ কলেজের হিসাব নম্বর এসবি ৩৭৩৯ থেকে নিজ নামে ১,১২,০০০/- টাকা এবং প্রভাষক মোঃ নুরুল হক এর নামে ৫০,০০০/- টাকা সর্বমোট ১,৬২ ০০০/- টাকা উত্তোলন করে নেন। যাহা অদ্যবিধি কলেজের কোন হিসাবে জমা দেন নেই এবং কলেজের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ন গভানিং বডির রেজুলিশন বই শিক্ষক-কর্মচারীদের ব্যক্তিগত ফাইল সহ অনেক গুরুত্বপূর্ন কাগজ পত্র নিয়ে যান।

এ ব্যপারে সাহান আরা বেগমকে পর পর কয়েকটি চিঠি দেয়া স্বত্তেও কাগজ পত্র ও উত্তোলিত টাকা ফেরৎ না দেয়ায় গত ২০১৪ সনের ১২ নভেম্বর বিসিসি ৯৭/২০১৪ নং স্মারকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।

বরিশাল সিটি কলেজের সাহান আরা বেগম প্যাটার্ন বর্হিভুত অতিরিক্ত শিক্ষক হওয়ায় তিনি অবসর হওয়ার পরেও কোন অবসর ভাতা গ্রহন করতে পরছেনা। এ ব্যাপারে শিক্ষক সাহান আরা বেগমের সাথে যোগাযোগ করা হলে ফোন নম্বরটি বন্ধ পাওয়া যায়।