মা ছেলের গল্প“পূরাটাই সত্যঘটনা” (শেয়ার করে সবাইকে জানার সুযোগ করে দিন)

0
162

এম.লোকমান হোসাঈন, নিউজ এডিটর।।

আমরা হযরত আদম এবং হযরত হাওয়া (আঃ) এর জন্মের পর থেকেই যেনে আসছি পৃথিবীতে কেউ আসতে হলে এক মাত্র পথ “মা” মা ছাড়া পৃথিবীর মূখঁ দেখা পুরাটাই অসম্ভাব।
আপনি যে ধর্মেরই হননা কেনো আপনাকে এটা বিশ্বাস করতেই হবে পৃথিবীতে আসতে হলে প্রয়োজন “মা”।

আর সেই মা যদি হয় আধুনিক এই পৃথিবীর সকল আধুনিক যন্তপাতির চেয়েও বেশি কিছু? তাহলে কি সেটা মিথ্যা বা নিজের থেকে বেশি কিছু বাড়িয়ে বলা হবে? আসলে না তাহলে শুনুন আমার জীবনে ঘটে যাওয়া একটি সত্যি ঘটনা।

আমার নাম এম.লোকমান হোসাঈন, আমরা  ৫ভাই বোন। ভাই ৪জন আর বোন ১জন। আমি ভাইদের মধ্যে বড়। বোন আমার বড়। আমি ২০০৭ সনের ২১ ফেব্রুয়ারি মাসে বিদেশ যাই।

তাহলে শুনুন আমার জীবনের একটি বাস্তব ঘটে যাওয়া ঘটনা। আজ থেকে প্রায় ১০বছর আগে আমি কর্মের জন্য বিদেশ যাই।
অথাৎ (সংযুক্ত আরব আমিরাত) আমরা সহজে চিনে থাকি বা বলে থাকি দুবাই। আর সেই দুবাইর রাজধানী আবুধাবীতে থাকতাম।
আবুধাবী অদূরে রইস এর গ্যাস এবং তৈল এর প্লন্টের পাই লাইনের মেরামতের কাজে নিয়োজিত ছিলাম । ঘটনার দিনটি আমার সঠিক মনে নাই তবে হ্যা সময়টা বেলা ১২টা ২৫/৩০মিনিট হবে।

আমি কাজের ফাকে দুপুরের খাবার শেষ করে কর্মস্থলেই পাইপের নিচে শুয়ে রইলাম।

হঠাৎ মোবাইল ব্যাজে উঠলো আমিও মোবাইলটি পকেট থেকে বের করে দেখি বাংলাদেশ থেকে ফোন। অথাঁৎ আমার বাড়ী থেকে ফোন আসল।

আমি ফোনটি রিসিভ করে সালাম বিনিময় করলাম।

মাঃ সালাম এর জবাব দিয়েই বললো। তুই কেমন আসিস? তুর বুকের ব্যাথা কেমন হইছে এখন কি অবস্থা???

আমিঃ আমার মায়ের কথার জবাব দিতে আর পারলাম না? নিজের অজান্তে আমার দুই চোঁখের পানি টল টল করে পরে গেলো।

আমি কিছু সময় চুপ করে থেকে বলছি না আমিত ভাল আছি? মা আপনাকে কেউ কিছু বলছে?? আমি ভাবলাম হয়ত আমার অসুস্থর বিষয় আগেই বাড়ীতে কেউ বলে দিছে। আবার ভাবলাম আসলে আমার বাসার মোবাইল নাম্বার আমি ছাড়া অন্য কারো কাছে নাই।
মাঃ বললো না আমি রাতে দেখলাম তুর বুকের ব্যাথা আগের চেয়ে অনেক বেশি ছিল??

বন্ধুরা আসলে বিষয়টি হচ্ছে ওই দিন রাতে আমার বুঁকে অনেক বেশি ব্যাথা ছিল যা আমি ওইদিন রাতে ঠিক মত ঘুমাতেও পারি নাই একা একা চিৎকারও করছিলাম। আর বিদেশ বসে এটাই প্রথম বুকে ব্যাথা করছিল। বিদেশ যাবার আগে দেশে মাঝে মধ্যে ব্যাথা করত কিন্তু এতো বেশি ব্যাথা এটাই প্রথম।

আমি সেই দিন রাতে ভ্যাবে ছিলাম আজ বুঝি আমার শেষ দিন? আমি আর বাচঁবোনা। কারন আমার
প্রবাসী জীবনে আমার সবচাইতে বেশি কষ্টের রাত কেটেছিল ওইদিন রাত। আমার বুকে খুব ব্যাথা ছিল আর সারারাত মাকে আর আমার সৃষ্টিকর্তা আল্লাহ্কে স্বরন করতে করতে কখন ঘুম পরেছি আর কখন সকাল হল আমি নিজেও জানি নাই।  

আর আমি আজও ভাবী আমার “মা” কি করে জানলো তার সন্তানের বুকের ব্যাথার কথা। তাই সেই প্রশ্নের উত্তর খুজে বেড়াই।

এটাকেই বলে “মা”।

কখনো সন্তানের জন্য মোবাইল কিংবা অন্য কোনো প্রযুক্তির প্রয়োজন হয়না এই পৃথিবীতে মায়েদের। কারন সন্তানদের কোনো সমস্যা হলে পৃথিবীতে আপনার সুন্দার রুপসী স্ত্রী,সন্তান,বন্ধু,বান্ধব কেউ জানার আগেই কোনো কিছুর মাধ্যম ছাড়াই সবার আগে সংবাদ চলে যায় আপনার বৃন্ধ মা-বাবার কাছে।

আমার “মা” আজও আপনাদের দোয়াতে বেচেঁ আছেন সবাই আমার মা এবং আমার বাবার জন্য দোয়া করবেন।

যাতে আমার মা-বাবা আল্লাহ্ পথে সঠিক ভাবে চলতে পারে এবং আমার বাবা,মা যে ভাবে আল্লাহ্কে স্বরন করছেন আমিও যেনো তাদের মত পৃথিবীতে চলতে পারি দোয়া করবেন।
পরিশেষে বলবো আসুন আমরা আমাদের মা-বাবাকে কষ্ট না দেই। মা-বাবার সেবা করি-আমীন

প্রিয় পাঠক এখানে শুধু একটি ঘটনা উল্লেখ করেছি আসলে আমি আমার মায়ে অনেক কিছু ঘটনা আজও আমাকে তারা দিচ্ছে কারন আমি মা কি জিনিস তা নিজে এখনো প্রতিটি মুহুত্ব উপলব্ধি করতে পারছি এবং করছি।মা হচ্ছে প্রতিটি সন্তানের একটি জান্নাত।