গাজীর বোলিং অ্যাকশন বৈধ

0
380

দেশের ক্রিকেটের জন্য দারুণ এক স্বস্তির খবর নিয়ে এল শনিবারের দিনটি।

বাংলাদেশের অফ স্পিনার সোহাগ গাজীর বোলিং অ্যাকশন এখন আর অবৈধ নয়। অনেক পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর বিশ্ব ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা-আইসিসির সবুজ সংকেতটা পেয়ে গেছেন, আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরতে তাঁর সামনে আর কোনো বাধাই নেই।
খবরটা সোহাগ নিজে পেয়েছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরীর কাছ থেকে।

তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে দারুণ উৎফুল্ল কণ্ঠস্বর তাঁর , আমি প্রচণ্ড খুশি। এই কদিন কষ্ট তো কম করিনি। খুব টেনশনে ছিলাম। আজ সব টেনশন থেকে রেহাই পেলাম। আমি আবার আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরতে পারব, আমার জন্য এর চেয়ে বড় সুসংবাদ আর কী হতে পারে?
আইসিসির তরফ থেকে জানানো হয়েছে, বোলিং করার সময় নিজের কনুই বাঁকানোর ব্যাপারটি ১৫ ডিগ্রির মধ্যেই রাখছেন সোহাগ। আর আইনসিদ্ধ এই মাত্রার মধ্যে রাখতে পারার কারণেই তাঁর বোলিং অ্যাকশনকে বৈধ ঘোষণা করেছে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা। যেকোনো সময় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরতেও তাঁর আর কোনো বাধা নেই।

সোহাগ গাজীর সঙ্গে বোলিং অ্যাকশনে আইসিসির বৈধতা পেয়েছেন পাকিস্তানি অফ স্পিনার সাঈদ আজমল। গত ২৪ জানুয়ারি চেন্নাইয়ের শ্রী রামচন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে বোলিং অ্যাকশনের চূড়ান্ত পরীক্ষা দেন সোহাগ গাজী ও সাঈদ আজমল।
সোহাগের বোলিং অ্যাকশন বৈধ ঘোষণা করলেও মাঠের আম্পায়ারদের শ্যেনদৃষ্টি অবশ্য এড়াতে পারছেন না সোহাগ। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে এখন থেকে সোহাগের ওপর কড়া নজরই নাকি রাখবে আইসিসির প্যানেল আম্পয়াররা। আইনসিদ্ধ ১৫ ডিগ্রির বেশি তাঁর কনুই বেঁকে গেলেই সোহাগকে আবারও ‘রিপোর্টেড’ করা হবে বলে জানা গেছে। আপাতত আইনের মধ্যে কনুই রেখে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরতে তাঁর কোনো সমস্যা নেই।